Press "Enter" to skip to content

সাংসদ নিশিকান্ত দুবে বৈদ্যনাথধামে জোর করে ঢুকে বিরোধের মুখে

  • জোর করে এক্সিট গেট দিয়ে প্রবেশ করেছিলেন

  • পাণ্ডার কমিটি খবর পেয়ে বিরোধ জানায়

  • প্রতিবাদ দেখাতে ধরণা দিয়েছিলে দূবে

  • স্থানীয় জনতা তাঁর বিরুদ্ধে স্লোগান দেয়

দেওঘর: সাংসদ নিশিকান্ত দুবে আজ এখানে জোর করে বাবা বৈদ্যনাথ ধামে প্রবেশের প্রয়াসে

তীব্র বিরোধিতার মুখোমুখি হয়েছেন। আসলে এমপি মন্দিরের বাইরে যাবার রাস্তা দিয়ে মন্দিরে

প্রবেশ করেছিলেন। শ্রী দুবের সাথে উপস্থিত কয়েকজন এই এলাকায় জোর ফলাতে শুরু করে।

এই জন্য ঝামেলা বাড়ে। ঝামেলা সামাল দিয়ে সাংসদ নিজেই প্রতিবাদে প্রায় পনের মিনিট ধরে

ধর্নায় বসেছিলেন। এদিকে, পান্ড ধর্মরক্ষিনী সভা তার আচরণের বিরোধিতা করেছিল।

এই দিকে দিয়ে ঢোকার নিষেধাজ্ঞার পরেও গোড্ডার এমপি নিশিকান্ত দুবে প্রস্থান ফটক থেকে

বাবা মন্দিরে প্রবেশ করেছিলেন। স্থানীয় তীর্থপুরোহিত সমাজে এ খবর ছড়িয়ে পড়লে দেওঘরের

তীর্থপুরোহিতের সংগঠন পান্ড ধর্মারক্ষিনী সভা এটির বিরোধিতা করে। মন্দির থেকে পূজা

শেষে সাংসদ ফিরে আসার আদেশে এই ঘটনা ঘটেছিল। সাংসদের বিরোধিতার কারণে হতবাক

এমপি মন্দিরের নিকাসী দ্বারে ধরনা দেন।

মন্দিরে উপস্থিত লোকেরা এম পি এই আচরণ দেখে রেগে গিয়েছিলো। তাঁদের কথা যে

শিবরাত্রির দিনে এত ভীড়ের মধ্যে একজন এম পি কি ভাবে এই রকম আচরণ করতে পারে।

সাংসদ নিশিকান্ত দুবে সেখানেও স্লোগান শোনেন

তার এই আচরণ দেখে সেথানে থাকা লোকেরা ক্ষেপে যায়। মহাশিব রাত্রির দিন মন্দিরে এত

ভীড়ের মধ্যে একজন এম পি কি করে এই ভাবে নিয়ম ভাঙ্গে সেই নিয়ে সেখানে প্রচুর কথা

কাটাকাটি হয়। সেখানে উপস্থিত জনতা এমপির বিরুদ্ধে স্লোগান দেয়। ঘটনার তথ্য পেয়ে

সেখানে উপস্থিত প্রশাসনিক আধিকারিকরা সেখান থেকে সাংসদকে তুলে নেন। পান্ড ধর্মরক্ষিনী

সভার সাধারণ সম্পাদক কার্তিক নাথ ঠাকুর এমপির এই কাজের নিন্দা করেছেন এবং বলেছেন

যে যখন মন্দিরের প্রস্থান থেকে সম্পূর্ণ প্রবেশ নিষিদ্ধ তখন গোড্ডা সাংসদরা কেন এই বিধি

মানছেন না? তবে সবচেয়ে বড় প্রশ্ন উঠেছে প্রশাসনের উপর। সর্বোপরি, বাবা মন্দিরে

শিবরাত্রির দিন বিশাল জনসমাগম হওয়া সত্ত্বেও কীভাবে সংসদ সদস্যরা প্রস্থানের গেট দিয়ে

প্রবেশ করলেন। ঝামেলা বেশি বাড়তে দেখে জেলা প্রশাসনের অফিসারেরা তাড়াতাড়ি

সাংসদ নিশিকান্ত দুবে কে সেখান থেকে সরিয়ে নিয়ে যান। তবে এই ব্যাপার নিয়ে আবার থেকে

সারা সন্থাল পরগনার রাজনীতি গরম হয়ে উঠেছে।


 

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
More from নেতাMore posts in নেতা »
More from বিতর্কMore posts in বিতর্ক »

Be First to Comment

Leave a Reply

Mission News Theme by Compete Themes.
error: Content is protected !!