পণ্ডিচেরিতেও দিল্লীর মতন অবস্থা এলজির ওপর খাপ্পা মুখ্যমন্ত্রী নারায়ণসামি

পণ্ডিচেরিতেও দিল্লীর মতন অবস্থা এলজির ওপর খাপ্পা মুখ্যমন্ত্রী নারায়ণসামি
Spread the love

পন্ডিচেরী: পণ্ডিতেরিতেও এখন দিল্লির মতো অগ্নিগর্ভ অবস্থ্যা।

পণ্ডিতেরিতেও লেফিনেন্ট গর্ভনার এবং মুখ্যমন্ত্রী সোজা লড়াইয়ে নেমে গিয়েছেন।

ঝামেলা এত বেড়েছে যে রেগে মেগে মুখ্যমন্ত্রী রাজ ভবনের গেটে ধরনা দিয়ে ফেলেছেন।

মুখ্যমন্ত্রী ভি নারায়ণসামীর রাস্তার ওপর রাত কাটিয়েছেন।

মাত্র একটি কম্বল বিছিয়ে মুখ্যমন্ত্রী সেখানের রাস্তার পাশে শুয়ে ছিলেন।

তাঁর্ সাথে তার কয়েকজন ক্যাবিনেট মন্ত্রীরাও সেখানে ছিলেন।

মুখ্যমন্ত্রী সরাসরি অভিযোগ করেছেন যে লেফটেন্যান্ট গভর্নর নির্বিচারে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করছেন।

তিনি এমন সব সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন যেগুলি এলজির কাজ নয়।

এদিকে মুখ্যমন্ত্রীর ধরনা দেবার খবর পাওয়ার পরে পণ্ডিতেরিতেও এলজি মানে কিরণ বেদী

আজ সকালে চেন্নাই চলে গেছেন। সেখানে তিনি একটি প্রোগ্রামে ভাগ নেবেন।

এতে ঝামেলা আরও বেড়ে গেছে।

রাত ভর ফুটপাথের ওপরে শুয়ে থাকার পরে মুখ্যমন্ত্রী কিরণ বেদীকে ফেরত নেবার কথা কেন্দ্র সরকার কে জানিয়েছেন।

নারায়নসামির অভিযোগ কে ক্যাবিনেটের নির্ণয় সম্বন্ধেও এলজি নিজের বুদ্ধি খাটাচ্ছেন।

সেটা তার কাজ নয়।

এই ধরনের কেন্দ্র শাসিত প্রদেশে এলজি মাত্র একটি পোস্ট অফিসের মতন কাজ করে।

তা না করে কিরণ বেদী সরকারের কাজে নাক গলাচ্ছেন।

মন্দার অবনতির জন্য প্রধানমন্ত্রীর এই বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকেও লক্ষ্য করা হয়েছে।

তিনি অভিযোগ করেছেন যে, নরেন্দ্র মোদির নির্দেশে এটি ঘটছে, যিনি কেন্দ্রীয় সরকারকে কাজ করার অনুমতি দিচ্ছেন না।

প্রতিটি কাজের মধ্যে লেফ্টিনেন্ট গভর্নরের কাজের মধ্যে বাধা আছে।

একটি এলজি হিসাবে যে ক্ষোভ আরো বেড়েছে, কিরণ বেদিও রাষ্ট্রীয় মন্ত্রিসভায় সিদ্ধান্ত নিয়ে হস্তক্ষেপ করছেন, যা তার কাজ নয়।

পণ্ডিতেরিতে এই অবস্থা তৈরি হবার জন্য মুখ্যমন্ত্রী খোদ নরেন্দ্র মোদির ওপরে অভিযোগ এনেছেন।

তার বক্তব্য হিসেবে কিরণ বেদী সব কাজ আসলে নরেন্দ্র মোদির ইশারায় করছেন।

এতে এলজি এবং কেন্দ্র সরকার চাইছে যে রাজ্য সরকারের কোন কাজই যাতে না হয়।

Loading...