Press "Enter" to skip to content

মাওবাদীরা মহাবীর সিং মুন্ডাকে হত্যা করেছে তামাড় থানার এলাকায়

তামাড়: মাওবাদীরা এক ব্যক্তিকে হত্যা করে এলাকায় তাদের উপস্থিতি পুনরায় জানান

দিয়েছে। তামাড় থানার লুঙ্গ্টু মানাগোদা পথে মাওবাদীরা ডুঙ্গারডিহের বাসিন্দা মহাবীর সিং

মুন্ডাকে গুলি করে হত্যা করেছে। এটি একটি বৃহস্পতিবার রাতের ঘটনা। যার তথ্য দেরিতে

থানায় পৌঁছেছে। মাওবাদীরা ঘটনাস্থলে একটি পোস্টার রেখে হত্যার দায় স্বীকার করেছে। 

গতকাল তাকে অপহরণ করা হয়েছিল। নকশালদের ফেলে দেওয়া পোস্টারে লেখা আছে যে

পার্টির নামে তোলা নেয়া, ডাকাতি ও পুলিশ ইনফরমারের জন্য এসপিওর সাথে জড়িত হয়ে

মহাবীর মুন্ডাকে মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়েছে। নিবেদক সিপিআই মাওবাদী। এই ঘটনার প্রসঙ্গে

গ্রামীণ এসপি নওশাদ আলম জানান, বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টায় মাঠে কাজ করার সময়

ডুঙ্গারডিহের বাসিন্দা মহাবীর সিং মুন্ডাকে চার জন অস্ত্র দেখিয়ে জোর করে নিজেদের সাথে

নিয়ে গিয়েছিলো। নিহতের বোন বৃহস্পতি কুমারী তত্ক্ষণাত ডুঙ্গারদিহ এসএসবি শিবিরকে

খবর দেন। তথ্য পাওয়ার সাথে সাথে শিবিরের সুরক্ষা কর্মিরা তদন্ত শুরু করে। তামাড় থানায়

চারজন অজ্ঞাত পরিচয় অপরাধীর বিরুদ্ধে মামলাও করা হয়েছিল। শুক্রবার সকালে খবর

পাওয়া যায় যে মানাগোদা বনে একজনের লাশ পড়ে আছে। তথ্য পাওয়ার সাথে সাথে বুন্ডূ

ডিএসপি অজয় কুমার সাথে আরও পুলিস নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে যান। সেখানে গিয়ে দেখা গেল

যে লাশটি আসলে মহাবীর মুন্ডার। তাকে খুব কাছ থেকে গুলি চালিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

গ্রামীণ এসপি নওশাদ আলম একটি বোমা নিষ্পত্তি স্কোয়াড ডেকে প্রথমে এলাকাটি দেখে নেন।

সেখানে বাকি সাক্ষ্য খোঁজের জন্য এফএসএল দলকেও ঘটনাস্থলে ডাকা হয়েছিল। কেবল পুরো

প্রক্রিয়াটি শেষ করে সন্ধ্যায় দেহটি উদ্ধার করে তামাড় থানায় আনা হয়।

মাওবাদীরা এর আগে দেবানন্দ সিং মুন্ডাকে হত্যা করেছিল

গ্রামীণ এসপি নওশাদ আলম মৃতের বাড়িতে ডুঙ্গারদিহ গিয়ে মৃতের পরিবারের সদস্যদের

সান্ত্বনা জানিয়ে বলেন যে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব খুনিদের ধরা হবে। ঘটনার পরে সারা এলাকায়

একটি আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয়েছে। গত 15 দিনের মধ্যে মাওবাদীদের দ্বারা এটি দ্বিতীয়

হত্যা। এর আগে, নকশাল বাহিনী ছেড়ে আসা দেবানন্দ সিং মুন্ডা ২৯ শে জুন আদেলপিদি

গ্রামের মাঝখানে ভীড়ের মধ্যে হত্যা করা হয়েছিলো।


 

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
More from অপরাধMore posts in অপরাধ »
More from তাজা খবরMore posts in তাজা খবর »
More from রাঁচিMore posts in রাঁচি »
More from সন্ত্রাসবাদMore posts in সন্ত্রাসবাদ »

Be First to Comment

Leave a Reply

Mission News Theme by Compete Themes.
error: Content is protected !!