Press "Enter" to skip to content

ইলিশ মাছের বন্যা এসেছে এবার বাংলাদেশের নদীতে

  • জেলেরা অনেক বছর পরে এত মাছ পাচ্ছেন

  • সরকারী নিয়ন্ত্রণও আরও বেশি আসার কারণ

  • ব্যবসায়ীরা এখন রফতানির অনুমতি চাইছেন

সুভাষ দাস

আগরতলা: ইলিশ মাছের ব্যাপারে জানা গেছে যে গত কয়েক বছরে এ জাতীয় ব্যবসা হয়নি।

এইজন্য বাংলাদেশে এবার মাছ চাষী এবং ব্যবসায়ীরা খুব খুশি। তাঁদের আনন্দের আসল কারণ

হল এই মাছের ব্যবসায় হঠাৎই বাড়ছে। সমুদ্র এবং নদীর মোহনায় এই প্রজাতির মাছ পাওয়া

যায়।

ইলিশ মাছের ব্যাবসার ব্যাপারটি ভিডিও তে দেখুন

এই প্রজাতিটিকে রক্ষা ও সংরক্ষণের জন্য বাংলাদেশ সরকার কয়েক বছর ধরে বেশ কয়েকটি

পদক্ষেপ নিয়েছিলো। সম্ভবত এবার নদীর জলে ও আবহাওয়ার প্রভাবে এই মাছের ফলন

বেড়েছে। ফলস্বরূপ, এই ইলিশ মাছগুলি বাংলাদেশের বাজারে প্লাবিত হয়েছে। মাছের বাজারে

এই মাছের আগমনের কারণে এবং আরও বেশি পণ্য প্রবাহের কারণে গ্রাহকদের দৃষ্টি এটির

দিকে। যাইহোক, এটি মাছ উত্সাহীদের জন্য সবচেয়ে সুস্বাদু মাছ হিসাবে বিবেচিত হয়। যার

প্রচুর কাঁটা রয়েছে। এ কারণে সাধারণ মানুষ এই মাছ খেতে পারেন না। তবে এবার ইলিশ সস্তা

হওয়ার কারণে, মানুষ অর্থনৈতিক সংকটের পরেও এটিকে অনেক বেশি কিনছে। প্রাপ্ত তথ্য

মতে, সরকারি নিষেধাজ্ঞার পরেও বাংলাদেশের মানুষ চোর দরজা দিয়ে এই মাছ ভারতে

পাঠাচ্ছেন। এ কারণে ত্রিপুরা ও পশ্চিমবঙ্গের অনেক মাছের বাজারে এখন প্রচুর ইলিশ মাছ

পাওয়া যাচ্ছে। তার পরেও বাংলাদেশের মাছ চাষী এবং ব্যাবসায়ীরা চান যে আরও ইলিশ

বাইরে পাঠাবার অনুমতি দিলে আরও বেশি লাভ অর্জন করা যাবে।

ইলিশ মাছের রফতানির অনুমতি চান ব্যবসায়ীরা

এই মাছের উচ্চ প্রবাহের কারণে মাছ ব্যবসায়ীরা এর রফতানির জন্য অনুমতি চাইছেন।

তাদের কথা হল বিদেশে এর উচ্চ চাহিদা থাকায় মৎস্যজীবী এবং মাছ ব্যবসায়ী উভয়ই মাছ

রফতানি থেকে রফতানি ছাড় থেকে উপকৃত হবেন। সাধারণত দশ থেকে বিশ টন ইলিশ মাছ

জলের জাহাজের কন্টেনারে পাঠান যায়। অন্য সব মাছের সাথে এতটাই ইলিশ পাঠানোর

অনুমতি আছে। তবে এবারও বাংলাদেশ সরকার এই মাছ চাষের ফসলের সাফল্যের দাবিদার,

যা গত জুন থেকে ইলিশ মাছের ওপর নিষেধাজ্ঞা লাগূ করেছিলো। সমুদ্র এবং নদীর মোহনাগুলি

ঘনিষ্ঠভাবে পর্যবেক্ষণের কারণে, এই প্রজাতির মাছগুলি তাদের বংশ বৃদ্ধি এবং আকারে বৃদ্ধির

পুরো সুযোগ রয়েছে। এখন, এই মরসুমে এগুলি ধরার পরে, তাদের তাত্ক্ষণিকভাবে বরফে

ঢেকে অন্যত্র প্রেরণ করা হচ্ছে।


 

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
More from কৃষিMore posts in কৃষি »
More from খাদ্যMore posts in খাদ্য »
More from ব্যবসাMore posts in ব্যবসা »

Be First to Comment

Leave a Reply

Mission News Theme by Compete Themes.
error: Content is protected !!