Press "Enter" to skip to content

দিল্লি পুলিশ অবশেষে শাহীনবাগকে খালি করিয়ে দিলো

নয়াদিল্লি: দিল্লি পুলিস অবশেষে নাগরিকত্ব সংশোধন আইনের (সিএএ) প্রতিবাদে তিন মাসেরও

বেশি সময় ধরে শাহীনবাগের ধর্না জোর করে সরিয়ে দিলো। এই বিক্ষোভের বিরুদ্ধে বড় পদক্ষেপ

নেওয়ার পরে মঙ্গলবার সকালে দিল্লি পুলিশ এখান থেকে সবাইকে সরিয়ে দেয়। দক্ষিণ পূর্ব দিল্লি

পুলিসের জেলা প্রশাসক বলেছিলেন যে দিল্লিতে করোনার ভাইরাস (কোভিড ১৯) লকডাউনকে

সামনে রেখে বিক্ষোভকারীদের সেখানের বিক্ষোভের এলাকাটি খালি করার জন্য অনুরোধ করা

হয়েছিল। তবে তারা সেই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেছিলেন। তার পরে দিল্লি পুলিশ ব্যবস্থা নিয়ে

তাদের সেখান থেকে সরিয়ে দেয়। কিছু প্রতিবাদকারীকেও আটক করা হয়েছে। ১৫ ডিসেম্বর

থেকে সিএএর বিরুদ্ধে শাহীনবাগে একটি অবস্থান-বিক্ষোভ ছিল। পুলিশ অফিসার বলেছেন যে

করোনার ভাইরাসের পরিপ্রেক্ষিতে দিল্লিতে লকডাউন কার্যকর করা হয়েছে এবং ১৪৪ ধারা জারি

করা হয়েছে। তিনি বলেছিলেন যে সংক্রমণের ভয়ে আন্দোলনকারীদের শাহীনবাগ থেকে সরিয়ে

দেওয়া হয়েছে। প্রতিবাদকারী বিক্ষোভকারীদের তাঁবুও সরানো হয়েছে। এ ছাড়াও উত্তর পূর্ব

দিল্লির জাফরাবাদে পুলিশ বিস্তৃত সুরক্ষার ব্যবস্থা করেছে। লক্ষণীয় বিষয়, গত মাসে সিএএর

বিরুদ্ধে এলাকায় অনেক জায়গায় বিক্ষোভ হয়েছিল। এতে অর্ধশতাধিক মানুষ প্রাণ হারান।

করোনায় ভাইরাসটি দেশে নয় জন নিহত হয়েছে এবং ৪৯২ জন মহামারী দ্বারা আক্রান্ত হয়েছে।

এই কোরোনার সংক্রমণ বেড়ে চলার জন্য এখন সারা দেশে লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। এর

আগেই দিল্লীতে লকডাউন করার কথা ঘোষণা করা হয়েছিলো। তার পরেও শাহীনবাগের ধর্না

শেষ হয় নি। শুধু মাত্র মাত্র পাঁচ জন মহিলা করে সেখানে ধরনা চালান হচ্ছিলো।

দিল্লি পুলিশ এর আগে আলোচনা করেছিল

শাহীনবাগ থেকে বিক্ষোভ শেষ করার বিষয়টি নিয়ে এর আগে দিল্লি পুলিশ আন্দোলনকারীদের

সাথে আলোচনা করেছিল। তারপরেও চারদিক থেকে এটি প্রকাশিত হয়েছিল যে, বর্তমানে

করোনার প্রভাব বিবেচনায় দেশের কোথাও এই ধরনের আন্দোলনের যৌক্তিকতা নেই। এর পরেও

আন্দোলনকারীরা এখানে দু’দিন প্রতীকী পদ্ধতিতে বসে ছিলেন। এই পিকেটে উপস্থিত ছিলেন মাত্র

পাঁচজন মহিলা। বাকী মহিলারা তাদের সমর্থনের জন্য সেখানে চৌকিগুলিতে চপ্পল রেখেছিলেন।

পুলিসের কাজ করার পরে সেই সব সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।


 

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •  
More from কোরোনাMore posts in কোরোনা »
More from দিল্লিMore posts in দিল্লি »
More from রাজনীতিMore posts in রাজনীতি »
More from ল এন্ড অর্ডারMore posts in ল এন্ড অর্ডার »

One Comment

Leave a Reply

Mission News Theme by Compete Themes.
error: Content is protected !!