চীন করছে নতুন প্রয়োগ, রাস্তার ওপরে চলতে চলতে চার্জ হয়ে যাবে গাড়ি

গাড়ী চালিয়ে ব্যাটারী চার্জের রাস্তা পূরো দেশে আসবে ২০৩০ অব্দি

0 10
এজেন্সি

বেইজিংগ –  গাড়ি চার্জ হবে রাস্থায় গাড়ি চালালেই। চীনে এই প্রযুক্তির ওপর কাজ শুরু হয়ে গেছে।  চীন এবার নতূন ধরনের প্রযুক্তির দিকে আগে বেড়ে গেছে। দেশে পেট্রোলের খরচ কম করতে চীন আগে থেকেই লোকেদের সাইকিল চালাতে প্রোত্সাহন দিয়েছে। এবার ইলেক্ট্রিক কার ব্যাবহার করা ওপরে কাজ চলছে।

এই ধরনের কার চললে তার ব্যাটারী চার্জ হবে রাস্তায় চলাকালীন।
পূরো দেশে সন ২০৩০ অব্দি এই রকমের রাস্তা তৈরী করার কাজ চলছে।
এই ধরনের রাস্তা থাকলে, ব্যাটারী চার্জ করার ঝামেলা থাকবে না।
তাই নতূন ধরনের রাস্তা তৈরি করা হচ্ছে, য়ার ওপর দিয়ে গাড়ি চললে,
গাড়ির ব্যাটারী নিজে থেকেই চার্জ হয়ে যাবে।
এই ভাবে চীন নিজের দেশে পেট্রোলের খরচ বাঁচাতে পারবে,
তাতে ওনেক ধরনের সাশ্রয় করা যাবে।

চার্জ হবে ব্লূটুথ টেকন্যোলাজির ওপরে

ওখানকার বৈজ্ঞানিকরা ব্লূটুথ টেকন্যোলাজির ওপরে এই কাজ করছেন। রাস্তার ওপর দিয়ে চলার সময় গাড়ির ব্যাটারি চার্জ হতে থাকলে, গাড়ির কিছূ সময়ের পরে রুকে আবার চার্জ করার ঝামেলাও থাকবে না।তাতে গাড়ির স্পীড আরও বেড়ে যাবে।
এই ধরনের গাড়ি রাস্তায় নামলে ইন্ধনজনিত পোল্য়ূশন ও কম হয়। তাই চীন এটা নিয়ে জোরকদমে কাজ চালিয়ে য়াচ্ছে।
চীনের আগে থেকে রাস্তার ওপরে সোলার প্যানেল লাগনো আছে এবং রাস্তায় আছে সেন্সার। এর ফলে নতূন ধরনের প্রযোগ করা সম্ভব হয়েছে।
চীনের জিনান প্রান্তে এই প্রয়োগ চলছে। এখানের রাস্তার ওপর দিয়ে য়ে গাড়ী যাবে, তার সমস্ত তথ্য সেন্সার নিজে থেকেই নিয়ে নেবে।
এর সাথ সাথ আসে পাশের প্রায় আঠশো বাড়িতে ইলেক্ট্রিক দেবার কাজ ও করা যাবে।
ট্রায়াল করার জন্য একটি কম্পানী একটি রাস্তার ওপরে কাজ করেছে।
এই রাস্তার ওপর দিয়ে প্রতি দিন প্রায় ৪৫ হাজার গাড়ী য়ায়।
রাস্তার ওপরে ট্রাঁসপারেন্ট কংক্রিট আছে।
তার নীচে আছে সেন্সার এবং সোলার প্যানেলের জাল।
যদি সব কিছূ ঠিক থাকে তো আসছে ২০৩০ অব্দি চীন
দেশের সব রাস্তাই এই রকম হবে।
যাতে ইলেক্ট্রিক কার নিয়ে য়েতে কারোর অসুবিধা না হয়

You might also like More from author

Comments

Loading...