Press "Enter" to skip to content

রোজগার পাবেন ৫০ হাজার লোক – মুখ্যমন্ত্রী

Spread the love



বোকারো (সং)- মুখ্যমন্ত্রী রঘুবর দাস বললেন মোমেন্টম ঝাড়খণ্ডের মাত্র দশ মাসের মধ্যে রাজ্য সরকার তিন গ্রাউন্ড ব্রেকিংগ সেরেমনি অনুষ্ঠিত করে বিভিন্ন কোম্পানিগুলির আধার শিলা রেখেছে, যার মাধ্যমে শুধুমাত্র ঝাড়খণ্ড রাজ্যে বিনিযোগ হয়েছে তা নয বরং রোজগারের পথটিও খুলে গেছে|
তিনি জানালেন সরকারের উদ্দেশ্য কোন ক্ষেত্রেই রোজগারের জন্য বাইরে না গিযে তাদের স্থানীয কিছুতে রোজগারের পথটি যেন খোলে| এরজন্য সরকার মেডিকেল, টেক্সটাইল, ফুড প্রোসেসিং, সহ সকল ক্ষেত্রে বিনিযোগ করার জন্য বিনিযোগকারীদের নিমন্ত্রন জানাচ্ছে|
তিনি এও বললেন বোকারোতে মেডিকেল টুরিজিমের ব্যাপক সম্ভাবনাগুলি পরিলক্ষিত হচ্ছে, সুতরাং সম্বন্ধিত বিনিযোগ এখানের প্রযুক্তি কলেজ এবং মেডিকেল কলেজ খোলার দিশাতে প্রযাসরত আছে| যার পরিনাম নিশ্চিত আছে| তার ভাষায আজ ঝাড়খণ্ড গুজরাটের পরে অর্থব্যাবস্থা তীব্র গতিতে এগোচ্ছে, যার সকল ঘরোযা উত্পাদন ৮.৬ শতাংশ| মুখ্যমন্ত্রী আজ বোকারোতে পুস্তকালয মযদানে অনুষ্ঠিত মোমেন্টম ঝাড়খণ্ডের থার্ড গ্রাউন্ড ব্রেকিংগ সেরিমনিকে সম্বন্ধিত করছিলেন|
মুখ্যমন্ত্রী জানালেন শিল্পের ক্ষেত্রে বিনিযোগের মাধ্যমে রাজ্যের অর্থব্যাবস্থাকে সুদৃহ করা হচ্ছে| তাঁর মতে বড় বড় শিল্পের নিজস্ব মহত্ব আছে কিন্তু মধ্যম, ক্ষুদ্র এবং কুটির শিল্প দেশের অর্থব্যাবস্থার মেরুদন্ড হচ্ছে এবং রাজ্য সরকার এটিকে সুদৃহ করার জন্য মুখ্যমন্ত্রী উদ্যমী বোর্ডের গঠন হয়েছে যাতে এইসব ক্ষেত্রে মানুষজনকে রোজগার উপলব্ধ করিযে তাদেরকে স্বনির্ভর করা হচ্ছে| তিনি বললেন রাজ্য সরকার ঝাড়খণ্ড রাজ্য যেব দারিদ্রতা বেড়জগার বহন করে চলেছে সেগুলিকে দূর করে সকলের মুখে হাসি ফোটানোর দিশাতে প্রযাস চালিযে যাচ্ছে|
আগামী স্বামী বিবেকানন্দ জন্মবার্ষীকিতে রাজ্যের ২৫ হাজার যুবকদের রোজগার দেওযার লক্ষ্যটি রাখা হয়েছে| ২০১৮ থেকে ১৯ সালের জুন থেকে জুলাই মাস অবধি ৫০ হাজার যুবকদের উপার্জনের পথ খোলার জন্য সরকারের প্রযাস আছে| রাজ্যতে বিনিযোগের মাধ্যমেও নিজস্ব ক্ষেত্রেও রোজগারের অবসর সৃষ্টি হবে|

রোজগার ছাড়ায় রাজ্যের খনিজ সম্পদ প্রচুর দিয়ে কাজ হবে

মুখ্যমন্ত্রী শ্রী রঘুবর দাস জানালেন ঝাড়খণ্ড রাজ্য ভু সম্পদে ভরপুর রাজ্য| এখানে মানব সম্পদ আছে এবং প্রাকৃতিক সম্পদেও এই রাজ্য পরিপুর্ন| তাই এখানে উন্নযনের অপার সম্ভাবনাগুলি পরিলক্ষিত হয| তিনি জানালেন ২০১৭ বর্ষের ১৬ ও ১৭ই ফেব্রুযারিতে যে মোমেন্টম ঝাড়খণ্ড বৈশ্বিক বিনিযোগ সন্মেলন অনুষ্ঠিত হয সেখানে দেশ বিদেশের বিনিযোগকারীদের সাথে ২১০ টি মৌ স্বাক্ষর সম্পন্ন হয এবং বিনিযোগকারীদের সাথে অনুষ্ঠিত মৌ স্বাক্ষরগুলি বাস্তবাযিত করার জন্য দুই গ্রাউন্ড ব্রেকিং সেরিমনি অনুষ্ঠিত করে ৯৫ টিআধারশিলা রাখা হয়েছে|
আজ বোকারোতে অনুষ্ঠিত থার্ড গ্রাউন্ড ব্রেকিং সেরিমনিতে ১০৫ টি কোম্পানির আধারশিলা রাখা হয়েছে| যার মাধ্যমে ঝাড়খণ্ডে প্রায ৩৪৭৫ কোটি অর্থ বিনিযোগ হবে এবং সতেরো হাজার সাতশো বিযাল্লিশ মানুষের জন্য রোজগারের পথ সৃষ্টি হবে| মুখ্য সচিব শ্রীমতী রাজবালা বর্মা বললেন শিল্প এবং শিল্পাযনের উন্নযন রাজ্যের উন্নতির মহত্বপুর্ন স্তর হচ্ছে এবং বিনিযোগের মাধ্যমেই এই ক্ষেত্রে উন্নযন সম্ভব|
তিনি এও জানালেন রাজ্যতে শিল্পাযন উন্নযনকে প্রাধান্য দেওযার জন্য এই বর্ষের ফেব্রুযারিতে মোমেন্টম ঝাড়খণ্ডের আযোজন করে বিনিযোগকারীদের নিমন্ত্রন জানানো হয | তিনি আরও জানালেন মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ বিনিযোগকারীদের প্রযোজন অনুসারে শিল্প স্থাপনের জন্য ডিস্কাউন্ট হারে জমি উপলব্ধ করানো এবং বিনিযোগকারীদের জমির জন্য কিস্তিতে রাশি জমা করার প্রাবধান রাখা হয়েছে| বিনিযোগকারীদের জন্য যে উত্সাহ রাশি সরাসরি তাদের ব্যাঙ্ক খাতাতে জমা করতে হবে|
রাজ্যের উন্নযন কমিশনার সহ অতিরিক্ত মুখ্য সচিব অমিত খরে ধন্যবাদ জানানোর ক্রমে বিনিযোগকারীদের আহবান জানালেন যে ঝাড়খণ্ড রাজ্যে বিনিযোগ বিশেষ লাভপ্রদ | সরকার এখানের বিনিযোগকারীদের সিঙ্গল উইন্ডো সিস্টেমের মাধ্যমে সকল প্রকারের সুবিধা দেওযার জন্য তত্পর আছে| ঝাড়খণ্ড রাজ্যে শিল্প স্থাপনের জন্য মেক ইন ইন্ডিযা কার্যকক্রম আরও মজৱুত হবে|
বিনিযোগকারীদের মধ্যে ভারত পেট্রোলিযাম কর্পোরেশন লিমিটেড, বোকারো ইন্সটিটিউট অফ মেডিকেল এবং এলাযড সাযে্সেজ, প্রতিক্ষা টেক্সটাইল, ও এন জী সি, এস এম বি এগ্রো প্রোডাক্টস প্রাইভেট লিমিটেড, মোডেলামা এক্সপোর্টস প্রাইভেট লিমিটেড, সোনী অটো এন্ড এলাযড ইন্ডাস্ট্রি| আকৃতি এপ্পল প্রাইভেট লিমিটেড| মোহন এল টি এস ইন্ডিযা প্রাইভেট লিমিটেড , সহ কিছু প্রমুখ শিল্প সংস্থান আছে যাদের আধারশিলা রাখা হয়েছে|
বোকারো স্টিলের সি ই ও শ্রী বীপি সিংহ স্বাগত সম্বোধনে বললেন এটি বোকারোর জন্য গৌরবের বিষয যে মোমেন্টম ঝাড়খণ্ডের থার্ড গ্রাউন্ড ব্রেকিং সেরিমনির একটি সাক্ষী হযে থাকল| তিনি আরও জানালেন ঝাড়খণ্ড রাজ্য বিনিযোগের জন্য অনুকুল পরিবেশ হচ্ছে| তিনি বোকারো ষ্টীল প্ল্যান্টের উদাহরন দিযে বললেন যে বোকারো ষ্টীল ঝাড়খণ্ডে বিগত ছয দশক ধরে কার্যো করে চলেছে এবং সরকারের সাথে পাযে পাযে এগিযে ঝাড়খণ্ডের উন্নযনের জন্য সহযোগ করে চলেছে| তিনি বিনিযোগকারীদের উদ্দেশ্যে বললেন যে সকল প্রকারের মৌলিক সুবিধাগুলি এখানে আছে যা একটি শিল্প এককের স্থাপনার জন্য বিশেষ প্রযোজনীয হচ্ছে| তিনি জানালেন এখানের মানুষেরা পরিশ্রমী, উর্জাবান, শিক্ষিত এবং অনুশাসিত হচ্ছেন| তাঁর বিশ্বাস পরিকাঠমোগত সুবিধাগুলি, প্রকৃতি এবং পরিবেশ বিষযে সারা দেশেতে বোকারো সারা শিল্পের ক্ষেত্রে অব্বল রুপ|
এই কার্য়ক্রমে কল্যান মন্ত্রী লুইস মারান্ডি, শিক্ষা এবং স্বাক্ষরতা মন্ত্রী নীরা যাদব, কৃষি মন্ত্রী রনধীর সিংহ, বিধাযক বিরঞ্চি নারাযন, রাজ সিনহা, যোগেশ্বর মাহাতো, ডঃ জীতুচরন রাম, মুখ্যমন্ত্রীর প্রধান সচিব শ্রী সঞ্জয কুমার, প্রধান সচিব কে কে খন্ডেলবাল, শিল্প সচিব শ্রী সুনীল কুমার বর্নবাল, শিল্প নির্দেশক শ্রী কে রবি কুমার, বোকারো হেডকোযার্টর আই জি শ্রী প্রভাত কুমার, বোকারোর জেলাশাসক শ্রী রায মহিমাপত রে ছাড়াও বড় সংখ্যাতে বিনিযোগকারী এবং গন্যমান্য ব্যাক্তিরা উপস্থিত ছিলেন|

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.